বিশেষ প্রতিবেদন

অভিজিৎ হত্যা: তদন্তে অগ্রগতি না হলেও আশা ছেড়ে দেয়নি

অজয় রায়
অজয় রায়

বিজ্ঞান লেখক অভিজিৎ হত্যার একবছরেও প্রকৃত খুনিদের ধরতে পারেনি পুলিশ—তবে মামলার তদন্ত সংস্থা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ বলছে, তাদেরকে শনাক্ত করা হযেছে শিগগিরই আইনের আওতায় আনা সম্ভব হবে।

এদিকে, অভিজিৎ হত্যায় জড়িতদের আইনের আওতায় এনে বিচারের মুখোমুখি করা হবে বলে আবারো আশা প্রকাশ করেছেন তার বাবা অধ্যাপক অজয় রায়।

এতোদিন পার হলেও অভিজিৎ হত্যার কোনো কূল-কিনারা করতে পারেননি গোয়েন্দারা। তারপরও গোয়েন্দা সংস্থার ওপর আস্থা রাখছেন অভিজিতের বাবা অধ্যাপক অজয় রায়।

দেশ টিভিকে তিনি বলেন, হত্যা তদন্তে গোয়েন্দাদের সব ধরনের সহায়তা করে যাচ্ছেন।

অভিজিতের বাবা অধ্যাপক অজয় রায় বলেন, ‘আমরা যতটা আশা করি ততটা অগ্রততি ঘটেনি, তবে একেবারে অগ্রগতি ঘটেনি তা বললো না, মানুষ আশা নিয়েই বাঁচে, আমি যদি আশা করা ছেড়ে দেই তাহলে তো হত্যাকারীদেরই জয় হলো আমি সেটা হতে দিতে চাই না।’

এ হত্যা মামলায় কয়েকজন পুলিশের হাতে আটক আছে।

সম্প্রতি বেশ কয়েকবার ডিএমপির মুখপাত্র মনিরুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, এফবিআই ১১টি আলামতের ডিএনএ টেস্ট সম্পন্ন করেছে— শিগগিরই এর রিপোর্ট হাতে আসবে।

তিনি আরো বলেন, ‘এ মামলার তদন্তে বেশ কিছু অগ্রগতি অবশ্যই আছে, এ মামলায় ৮ জন গ্রেপ্তার হয়েছে। আরো গ্রেপ্তার হবে পাশাপাশি গুরুত্বপূর্ণ যেসব আলামত পাওয়া গেছে এবং এখানের বেশ কিছু প্রতিবেদন পাওয়া গেলে আপনাদের সব তথ্য জানানো যাবে।’

উল্লেখ, ২০১৫ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি রাতে একুশে বইমেলা থেকে ফেরার পথে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি চত্বরের কাছেই জঙ্গিরা কুপিয়ে খুন করে বিজ্ঞান লেখক অভিজিৎ রায়কে। এসময় হামলায় আহত হন অভিজিতের স্ত্রী রাফিদা আহমেদ বন্যাও।

এরপর ওই হত্যাকাণ্ড তদন্তে সাহায্য করতে ৫ মার্চ ঢাকা আসে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা- এফবিআইয়ের একটি প্রতিনিধিদল। ৬ মার্চ তারা ঘটনাস্থল ঘুরে দেখেন। এসময় ঘটনাস্থল থেকে সংগ্রহ করা ১১টি আলামতের ডিএনএ পরীক্ষার জন্য দেয়া হয় এফবিআইকে। এরপর প্রায় ১০ মাস পেরিয়ে গেলেও এখনো ডিএনএ পরীক্ষার রিপোর্ট হাতে পায়নি মামলাটির তদন্ত সংস্থা গোয়েন্দা পুলিশ।

দেশটিভি/আরসি
দেশ-বিদেশের সকল তাৎক্ষণিক সংবাদ, দেশ টিভির জনপ্রিয় সব নাটক ও অনুষ্ঠান দেখতে, সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল:

এছাড়াও রয়েছে

বাংলাদেশ থেকে অস্কারে লড়বে ‘ইতি তোমারই ঢাকা’

টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশের ২০ বছর

শ্রীলংকায় সাম্প্রদায়িক সহিংসতা নয়, অভ্যন্তরীণ রাজনৈতিক সংকট

অগ্নি-ঝুঁকি: রাজধানী ঘিরে যে মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়নের পরামর্শ

নিরাপদ সড়ক প্রতিষ্ঠায় পরিবহন মালিক-চালকদের দায়বদ্ধের তাগিদ

অপরিকল্পিত নগরায়ন, আইন না মানার প্রবণতা সব মিলিয়েই ঝুঁকিতে রাজধানীবাসী

পাট থেকে তৈরি হচ্ছে লেমিনেটেড ব্যাগ-স্লাইবার ক্যানশিট

পাইলটকে ফিরে দেয়া মানেই ভারত-পাকিস্তান উত্তেজনার শেষ নয়

সর্বশেষ খবর

  • অতিরিক্ত ভাড়া আদায়: ঢাকা-চট্টগ্রামে বিআরটির অভিযানে মামলা, জরিমানা

    -৫৬৯৭ সেকেন্ড আগে
    অতিরিক্ত ভাড়া আদায়: ঢাকা-চট্টগ্রামে বিআরটির অভিযানে মামলা, জরিমানা
  • নিরুপায় হয়েই জ্বালানি তেলের মূল্য সমন্বয়ে বাধ্য হয়েছে সরকার: জয়

    -৫০১০ সেকেন্ড আগে
    নিরুপায় হয়েই জ্বালানি তেলের মূল্য সমন্বয়ে বাধ্য হয়েছে সরকার: জয়
  • আরটিভিতে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি

    -৩৫৯৮ সেকেন্ড আগে
    আরটিভিতে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি
  • ডলার কারসাজি: ৬ ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থার নির্দেশ

    -২৪৩৫ সেকেন্ড আগে
    ডলার কারসাজি: ৬ ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থার নির্দেশ
  • আলোচনায় চ্যানেল নাইনের টার্কিশ সিরিজ ‘আকাশ জুড়ে মেঘ’

    -১৬২১ সেকেন্ড আগে
    আলোচনায় চ্যানেল নাইনের টার্কিশ সিরিজ ‘আকাশ জুড়ে মেঘ’

সর্বশেষ খবর

অতিরিক্ত ভাড়া আদায়: ঢাকা-চট্টগ্রামে বিআরটির অভিযানে মামলা, জরিমানা

নিরুপায় হয়েই জ্বালানি তেলের মূল্য সমন্বয়ে বাধ্য হয়েছে সরকার: জয়

আরটিভিতে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি

ডলার কারসাজি: ৬ ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থার নির্দেশ