জেলার খবর

ফজলি আমের স্বীকৃতি পেলো রাজশাহী ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ

ফজলি আম। ছবি: সংগৃহীত
ফজলি আম। ছবি: সংগৃহীত

রাজশাহীর ফজলি আমের স্বীকৃতিতে এবার ভাগ বসালো পাশের জেলা চাঁপাইনবাবগঞ্জ। ফজলি আমের জিআই স্বত্ব পেলো এই দুই জেলা।

মঙ্গলবার শুনানি শেষে শিল্প মন্ত্রণালয়ের পেটেন্ট, ডিজাইন অ্যান্ড ট্রেডমার্ক অধিদপ্তরের রেজিস্ট্রারের দপ্তর থেকে এই ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। আগামী রোববার পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ করা হবে। অধিদপ্তর সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

শুনানি শেষে ‘রাজশাহী-চাঁপাইনবাবগঞ্জের ফজলি আম’ হিসেবে নতুন করে ভৌগোলিক নির্দেশক (জিআই) ঘোষণা আসে।

গত ৬ অক্টোবর আমটির জিআই নাম হয় ‘রাজশাহীর ফজলি আম’। রাজশাহী ফল গবেষণাকেন্দ্রের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে রাজশাহীকে এ স্বীকৃতি দেওয়া হয়। পরে শিল্প মন্ত্রণালয়ের পেটেন্ট, ডিজাইন অ্যান্ড ট্রেডমার্ক তাদের ‘দ্য জিওগ্রাফিক্যাল ইনডিকেশন (জিআই)’-এর ১০ নম্বর জার্নালে নিবন্ধন ও সুরা আইন ২০১৩ এর ১২ ধারা অনুসারে তা প্রকাশ করে। ২০১৭ সালের ৯ মার্চ এই স্বীকৃতির জন্য আবেদন করা হয়েছিল।

কিন্তু চাঁপাইনবাবগঞ্জের পক্ষ থেকে ফজলি আমকে চাঁপাইনবাবগঞ্জের দাবি করে এর বিরোধিতা করা হয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে শিল্প মন্ত্রণালয়ের পেটেন্ট, ডিজাইন অ্যান্ড ট্রেডমার্ক অধিদপ্তর এই শুনানির আয়োজন করে। আজ মঙ্গলবার রাজশাহীর পক্ষে শুনানিতে অংশ নেন রাজশাহী ফল গবেষণা কেন্দ্রের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা আলীম উদ্দীন। আর চাঁপাইনবাবগঞ্জের পক্ষে চাঁপাইনবাবগঞ্জ কৃষি অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মুনজের আলম। বেলা ১১টায় শিল্প মন্ত্রণালয়ের পেটেন্ট, ডিজাইন অ্যান্ড ট্রেডমার্ক অধিদপ্তরের রেজিস্ট্রারের সভাপতিত্বে এই শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। বিকেলে সাড়ে চারটার পর এই রায় ঘোষণা করা হয়।

দেশটিভি/এমএস
দেশ-বিদেশের সকল তাৎক্ষণিক সংবাদ, দেশ টিভির জনপ্রিয় সব নাটক ও অনুষ্ঠান দেখতে, সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল:

এছাড়াও রয়েছে

গাজীপুরে বসত ঘরে মিললো গৃহবধূর লাশ

নাজিরপুরে বাসচাপায় স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা নিহত

নেত্রকোনায় বন্যার পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

হাটহাজারিতে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে নির্মাণ শ্রমিক নিহত

চট্টগ্রামে আরএনবি'র ১২ সিপাহী বদলি

সীতাকুণ্ডের বিএম ডিপোতে মিললো দেহাবশেষ

রিমান্ড শেষে কারাগারে পদ্মা সেতুর নাট খোলা বায়েজিদ

বাসচাপায় সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তার পা বিচ্ছিন্ন

সর্বশেষ খবর

  • আগাম নির্বাচনের দাবি প্রত্যাখ্যান বরিস জনসনের

    -১৬১০৬ সেকেন্ড আগে
    আগাম নির্বাচনের দাবি প্রত্যাখ্যান বরিস জনসনের
  • শিক্ষকদের ওপর হামলার ঘটনায় ইউনিসেফের উদ্বেগ-নিন্দা

    -১৩৮৪৫ সেকেন্ড আগে
    শিক্ষকদের ওপর হামলার ঘটনায় ইউনিসেফের উদ্বেগ-নিন্দা
  • গাজীপুরে বসত ঘরে মিললো গৃহবধূর লাশ

    -১২১৯০ সেকেন্ড আগে
    গাজীপুরে বসত ঘরে মিললো গৃহবধূর লাশ
  • সরকারের অব্যবস্থাপনায় বিদ্যুতের সংকট: জাফরুল্লাহ

    -১০২৭৫ সেকেন্ড আগে
    সরকারের অব্যবস্থাপনায় বিদ্যুতের সংকট: জাফরুল্লাহ
  • তদারকির গাফিলতিতেই সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ড, বললো তদন্ত কমিটি

    -৮৫৪৪ সেকেন্ড আগে
    তদারকির গাফিলতিতেই সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ড, বললো তদন্ত কমিটি

সর্বশেষ খবর

আগাম নির্বাচনের দাবি প্রত্যাখ্যান বরিস জনসনের

শিক্ষকদের ওপর হামলার ঘটনায় ইউনিসেফের উদ্বেগ-নিন্দা

গাজীপুরে বসত ঘরে মিললো গৃহবধূর লাশ

সরকারের অব্যবস্থাপনায় বিদ্যুতের সংকট: জাফরুল্লাহ