অর্থনীতি

রবিবার, ২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৪ (১৯:২৪)

হরতাল ফেরায় সহিংসতার আশঙ্কা ব্যবসায়ীদের

চট্টগ্রাম পোর্ট

পাঁচ জানুয়ারি নির্বাচনের আগের হরতাল-সহিংসতার ক্ষতি না পোষাতেই আবারো হরতালের মতো কর্মসূচিতে আতঙ্কিত দেশের ব্যবসায়ী সমাজ। সহিংস রাজনীতির পুনরাবৃত্তি হলে দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য মুখ থুবড়ে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা তাদের। রোববার দেশ টিভিকে দেয়া একান্ত সাক্ষাতে ব্যবসায়ীরা এ কথা বলেন।

হরতাল-ধর্মঘট প্রত্যাহার করে আলোচনার মাধ্যমে ব্যবসা-বাণিজ্যের সুষ্ঠ পরিবেশ নিশ্চিত করতে রাজনীতিবিদদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন ব্যবসায়ী নেতারা।

এফবিসিসিআই পরিচালক তাবারাকুল তোসাদ্দেক হোসেন খান বলেন, ‘আমাদের ব্যবসা-বাণিজ্য কয়েক বাবের হরতালে এমনিতেই ধস নেমে গেছে। টানা হরতাল যখন থাকলে ব্যাংকের ঋণ দিতে পারবো না, আর ব্যাংক তো এগুলো বুঝবে না। এ রকম একটি পরিবেশে বাংলাদেশে ব্যবসা-বাণিজ্য করা অনেক কঠিন হয়ে গেছে।’

২০১৩ সালের শেষ ছয় মাসে রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতার কারণে ধংসযজ্ঞ এখনো দুঃস্বপ্নের মতো বলে জানিয়েছেন বিজিএমইএের সাবেক সভাপতি আনোয়ারুল পারভেজ।

তিনি বলেন, ‘২০১৩ সালে দেশের যে পরিস্থিতি ছিল, সেটা থেকেই অনেক বড় ও ছোট ব্যবসায়ীরা এখনো বের হতে পারেনি। তাই আবার যদি দেশের পরিস্থিতি খারাপ হয় তবে ব্যবসায়ীদের জন্য এটা ভয়ঙ্কর রূপ ধারন করবে।’

রাজনৈতিক অনিশ্চয়তার কারণে বিদেশি ক্রেতারা দিন দিন আস্থা হারাচ্ছেন এবং বেসরকারি খাতের বিনিয়োগ যেমন স্থবির হয়ে আছে বলেও জানান বিজিএমইএের সাবেক সভাপতি।

অর্থনীতির স্বার্থে আলোচনায় বসতে রাজনীতিবিদদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে আনোয়ারুল পারভেজ বলেন, ‘বিএনপি ও আওয়ামী লীগকে অবশ্যই এক সঙ্গে বসতে হবে।’

ইন্দো-বাংলা চেম্বার অব কর্মাস এন্ড ইন্ডাসন্ট্রিজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাতলুব আহমদ বলেন, ‘ডায়লগের সময় কী এখন? না-কি পরে হবে, এসব সরকারে চিন্তা করবে, তবে আমরা ব্যবসায়ীরা দেশে শান্তি চাই। দেশের শান্তি ও সুষ্ঠু ব্যবসায়ী পরিবেশের জন্য সরকারকেই ব্যবস্থা করে দিতে হবে।’

বাংলাদেশকে ঘিরে আঞ্চলিক যোগাযোগের যে নেটওয়ার্ক গড়ে তোলার পরিকল্পনা চলছে, রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা নিশ্চিত করতে না পারলে তার সুফল বাংলাদেশ পাবে না বলে আশঙ্কা ব্যবসায়ীদের।

বিভিন্ন গবেষণা প্রতিষ্ঠানের হিসেবে, সে সময়ের টানা ৬ মাসে রাজনৈতিক সহিংসতায় দেশের আর্থিক ক্ষতি হয়েছে প্রায় ২৬ হাজার কোটি টাকা। ক্ষয়-ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে না পেরে বন্ধ হয়ে গেছে অনেক ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প প্রতিষ্ঠান ও ঋণ খেলাপী হয়েছেন অনেক ব্যবসায়ী।

ইউটিউবে দেশ টেলিভিশনের জনপ্রিয় সব নাটক ও অনুষ্ঠান দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Desh TV YouTube Channel

এছাড়াও রয়েছে

পোশাক কারখানা বন্ধ রাখার অনুরোধ বিজিএমইএর

জুন পর্যন্ত ক্রেডিট কার্ডে জরিমানা নয়

করোনার মধ্যেও বাংলাদেশের শক্তিশালী প্রবৃদ্ধির আশা এডিবির

১১ এপ্রিল পর্যন্ত শেয়ারবাজার বন্ধ

আজ থেকে ক্রেডিট কার্ড ছাড়া সব ঋণের এক অঙ্কের সুদহার

ইইউভুক্ত দেশসমূহে জিএসপি সুবিধা বাতিলের প্রস্তাব খারিজ

আজ থেকে সীমিত সময়ের জন্য ব্যাংক চালু

বিশ্ব অর্থনীতি চাঙ্গা করতে সহায়তার ঘোষণা দিল জি-২০

সর্বশেষ খবর

আবারও প্রচারে ‘কোথাও কেউ নেই’ ও ‘বহুব্রীহি’

করোনার লক্ষণ নিয়ে দেশে আরো সাত জনের মৃত্যু

ক্লাবগুলোর উচিত ফুটবলারদের বেতন দেয়া: ম্যারাডোনা

মেয়েদের অনূর্ধ্ব-১৭ ফুটবল বিশ্বকাপও স্থগিত