আদালত

পারিবারিক আদালতের মামলায় ‘পাওয়ার অব অ্যাটর্নি’ নয়: হাইকোর্ট

হাইকোর্ট
হাইকোর্ট

পারিবারিক আদালতে মামলা পরিচালনার ক্ষেত্রে মূল ব্যক্তির অনুপস্থিতিতে অন্যকে ক্ষমতা অর্পণ করা তথা ‘পাওয়ার অব অ্যাটর্নি’ দেওয়া যাবে না বলে রায় দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ ছাড়া পারিবারিক আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে রিভিশন করার ক্ষেত্রে দেওয়ানি কার্যবিধির ১১৫ ধারা প্রয়োগ বাধা হবে না, যদিও পারিবারিক আদালত অধ্যাদেশে দেওয়ানি কার্যবিধির ধারা ১০ ও ১১ ব্যতীত অন্য ধারার প্রয়োগকে বারিত করা আছে।

বিচারপতি এ কে এম আবদুল হাকিম, বিচারপতি মো. রুহুল কুদ্দুস ও বিচারপতি কাজী ইবাদত হোসেনের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের বৃহত্তর বেঞ্চ এ সংক্রান্ত রুল খারিজ করে আজ মঙ্গলবার এ রায় ঘোষণা করেন।

আদালতে বাদীপক্ষে শুনানিতে ছিলেন ব্যারিস্টার মো. সাইদুল আলম খান। আর বিবাদী পক্ষে ছিলেন আইনজীবী এম খালেদ আহমেদ।

আজকের এই রায়ের পর ব্যারিস্টার মো. সাইদুল আলম খান এনটিভি অনলাইনকে বলেন, এই মামলার বাদী এক নারী তার আমেরিকা প্রবাসী সাবেক স্বামীর বিরুদ্ধে দেনমোহর ও সন্তানের ভরনপোষণের দাবিতে মামলা করেন। সে মামলায় বিবাদী তাঁর পক্ষে মামলা লড়তে এক আত্মীয়কে ‘পাওয়ার অব অ্যাটর্নি’ করেন। কিন্তু ‘ফ্যামিলি কোর্ট অর্ডিন্যান্স-১৯৮৫’ অনুযায়ী পারিবারিক মামলায় ‘পাওয়ার অব অ্যাটর্নি’ নেওয়ার বিধান নেই বলে সিলেটের পারিবারিক আদালত এই মামলার বিবাদীর ‘পাওয়ার অব অ্যাটর্নি’ গ্রহণ না করে আদেশ দেন।

সে সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে বিবাদী আপিল করলে সিলেটের জেলা জজ আদালত সে আপিল খারিজ করেন। তবে বিচারিক আদালতের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে একপর্যায়ে হাইকোর্টে রিভিশন আবেদন করেন আমেরিকা প্রবাসী ওই বিবাদী।

পরবর্তীকালে বিচারপতি মো. রুহুল কুদ্দুস ও বিচারপতি কাজী ইবাদত হোসেনের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে ওই রিভিশন আবেদনের শুনানি শুরু হয়। সে শুনানিতে পারিবারিক আদালতের মামলায় দেওয়ানি কার্যবিধির ১০ ও ১১ ধারার বাইরে অন্য কোনো ধারা প্রযোজ্য হবে কিনা সে বিষয়ে হাইকোর্টের সামনে ভিন্ন ভিন্ন রায় পরিলক্ষিত হয়।

একপর্যায়ে হাইকোর্ট বেঞ্চ রিভিশন আবেদনটি শুনানির জন্য বৃহত্তর বেঞ্চ গঠন করতে বিষয়টি প্রধান বিচারপতির কাছে পাঠান। পরে প্রধান বিচারপতি রিভিশন আবেদনটি শুনানির জন্য তিন বিচারপতির সমন্বয়ে একটি বৃহত্তর হাইকোর্ট বেঞ্চ গঠন করে দেন।

বিচারপতি এ কে এম আবদুল হাকিম, বিচারপতি মো. রুহুল কুদ্দুস ও বিচারপতি কাজী ইবাদত হোসেনের সমন্বয়ে গঠিত বৃহত্তর এই বেঞ্চ রিভিশন আবেদনটি শুনানির একপর্যায়ে অভিমত নিতে চারজন জ্যেষ্ঠ আইনজীবীকে অ্যামিকাস কিউরি হিসেবে নিয়োগ দিন। পরবর্তী সময়ে জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এম আই ফারুকী, এ এফ হাসান আরিফ, কামালুল আলম ও প্রবীর নিয়োগী এ বিষয়ে আদালতে তাদের অভিমত দেন। এরপর আদালত আজ রায় ঘোষণা করেন। / এন

দেশটিভি/এমএ
দেশ-বিদেশের সকল তাৎক্ষণিক সংবাদ, দেশ টিভির জনপ্রিয় সব নাটক ও অনুষ্ঠান দেখতে, সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল:

এছাড়াও রয়েছে

কুষ্টিয়ায় জেএমবি সদস্যসহ ছয়জনের যাবজ্জীবন

সুইস ব্যাংকের কাছে তথ্য না চাওয়ার কারণ জানতে চান হাইকোর্ট

দুর্নীতির মামলায় জামিন মেলেনি সম্রাটের

চলন্ত বাসে গণধর্ষণ-ডাকাতি: আসামি রাজা ৫ দিনের রিমান্ডে

অস্ত্র মামলায় নূর হোসেনের যাবজ্জীবন

আনসার বিদ্রোহ: কিছু সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছেন খালাসপ্রাপ্তরা

জাপা নেতা রুহুল আমিনকে দুই সপ্তাহের মধ্যে আত্মসমর্পণের নির্দেশ

হাজী সেলিমের লিভ টু আপিলের শুনানি ২৩ অক্টোবর

সর্বশেষ খবর

  • কলকাতায় ‘অভিযান বুক ক্যাফে’র যাত্রা শুরু

    ৪ ঘণ্টা আগে
    কলকাতায় ‘অভিযান বুক ক্যাফে’র যাত্রা শুরু
  • ময়মনসিংহে বাসচাপায় অটোরিকশার দুই যাত্রী নিহত

    ৫ ঘণ্টা আগে
    ময়মনসিংহে বাসচাপায় অটোরিকশার দুই যাত্রী নিহত
  • জ্বালানি তেলের মূল্য কমছে পাকিস্তানে

    ৫ ঘণ্টা আগে
    জ্বালানি তেলের মূল্য কমছে পাকিস্তানে
  • ব্যাংকের সব শাখায় পাওয়া যাবে নগদ ডলার

    ৫ ঘণ্টা আগে
    ব্যাংকের সব শাখায় পাওয়া যাবে নগদ ডলার
  • শনিবার পূর্ণদিবস কর্মবিরতির ডাক চা শ্রমিকদের

    ৬ ঘণ্টা আগে
    শনিবার পূর্ণদিবস কর্মবিরতির ডাক চা শ্রমিকদের

সর্বশেষ খবর

কলকাতায় ‘অভিযান বুক ক্যাফে’র যাত্রা শুরু

ময়মনসিংহে বাসচাপায় অটোরিকশার দুই যাত্রী নিহত

জ্বালানি তেলের মূল্য কমছে পাকিস্তানে

ব্যাংকের সব শাখায় পাওয়া যাবে নগদ ডলার