আদালত

বুধবার, ০৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০ (১৬:০৪)

পুলিশি হেফাজতে মৃত্যু

তিন পুলিশের যাবজ্জীবন, ২ সোর্সের ৭ বছরের জেল

তিন পুলিশের যাবজ্জীবন, ২ সোর্সের ৭ বছরের জেল

দেশের ইতিহাসে পুলিশ হেফাজতে আসামির মৃত্যুর ঘটনায় দায়ের করা মামলায় পাঁচ আসামিকে সাজা দিয়েছে আদালত। এরমধ্যে এসআই জাহিদসহ তিনজনের যাবজ্জীবন ও বাকি দুজনকে সাত বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

বুধবার (৯ সেপ্টেম্বর) ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ এ রায় ঘোষণা করেন। নির্যাতন এবং হেফাজতে মৃত্যু (নিবারণ) আইনের এটি প্রথম রায়। এ মামলায় ২৪ জনের সাক্ষ্য নিয়েছে আদালত।

যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত অন্য আসামিরা হলেন-পল্লবী থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) রাশেদুল, এএসআই কামরুজ্জামান মিন্টু। সাত বছর কারাদণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন-সোর্স সুমন ও রাশেদ।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ২০১৪ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি মিরপুর-১১ নম্বর সেক্টরে স্থানীয় সাদেকের ছেলের গায়ে হলুদ অনুষ্ঠান চলাকালে পুলিশের সোর্স সুমন মেয়েদের সঙ্গে অশালীন আচরণ করেন। এ সময় জনি ও তার ভাই সুমনকে চলে যেতে বলেন। সুমন চলে গেলেও পরদিন এসে আবার আগের মতো আচরণ করতে থাকেন। তখন জনি ও তার ভাই তাকে চলে যেতে বললে সুমন পু্লিশকে ফোন করে তাদের ধরে নিয়ে যান। তাদের নিয়ে যাওয়ার সময় এলাকার লোকজন ধাওয়া দিলে পুলিশ গুলি ছোড়ে।

পরে থানায় নিয়ে জনিকে নির্যাতন করা হয়। একপর্যায়ে জনির অবস্থা খারাপ হলে ন্যাশনাল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরবর্তীতে অবস্থা আরও খারাপ হওয়ায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ওই ঘটনায় ২০১৪ সালের ৭ আগস্ট ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতে নির্যাতন ও পুলিশ হেফাজতে মৃত্যু (নিবারণ) আইনে পল্লবী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জিয়াউর রহমানসহ আটজনের বিরুদ্ধে মামলা করেন নিহত জনির ছোট ভাই ইমতিয়াজ হোসেন রকি।

মামলার অন্য আসামিরা হলেন-পল্লবী থানার সাবেক এসআই জাহিদুর রহমান জাহিদ, এসআই আবদুল বাতেন, এসআই রাশেদ, এসআই শোভন কুমার সাহা, কনস্টেবল নজরুল, সোর্স সুমন ও রাসেল।

২০১৫ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি ঢাকা মহানগর হাকিম মারুফ হোসেন পাঁচজনকে অভিযুক্ত এবং পাঁচজনকে অব্যাহতির সুপারিশ করে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। তদন্তকালে পুলিশের এএসআই রাশেদুল ও কামরুজ্জামান মিন্টুকে নতুন করে অন্তর্ভুক্ত করা হয়।

২০১৬ সালের ১৭ এপ্রিল পল্লবী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাহিদুর রহমান জাহিদ, এএসআই রাশেদুল, এএসআই কামরুজ্জামান মিন্টু, সোর্স সুমন ও রাশেদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেন ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কামরুল হোসেন মোল্লা।

এছাড়াও রয়েছে

তিন দিনের রিমান্ডে ইরফান ও জাহিদ

বুয়েটছাত্র আবরার হত্যা মামলায় আরও একজনের সাক্ষ্য

রিফাত হত্যা: অপ্রাপ্তবয়স্কদের বিচার চলছে, নিরাপত্তা জোরদার

রিফাত হত্যা মামলায় ১১ আসামির বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড, ৩ জন খালাস

রিফাত হত্যা মামলায় অপ্রাপ্তবয়স্ক ১৪ আসামির রায় মঙ্গলবার

মানবতাবিরোধী অপরাধে দণ্ডপ্রাপ্ত কায়সারের মৃত্যু পরোয়ানা জারি

পি কে হালদার দেশে পা রাখার সঙ্গে সঙ্গে গ্রেফতারের নির্দেশ

সুপ্রিম কোর্টের মামলার তথ্য জানতে নতুন অ্যাপ চালু

আরও খবর

  • যে শর্তে জামিন পেলেন নির্মাতা দেবাশীষ বিশ্বাস

    যে শর্তে জামিন পেলেন নির্মাতা দেবাশীষ বিশ্বাস

  • নববধূ নেহার ছবি ভাইরাল

    নববধূ নেহার ছবি ভাইরাল

  • রিফাত হত্যা: অপ্রাপ্তবয়স্কদের বিচার চলছে, নিরাপত্তা জোরদার

    রিফাত হত্যা: অপ্রাপ্তবয়স্কদের বিচার চলছে, নিরাপত্তা জোরদার

  • চাঁদে বিপুল পরিমাণ পানির সন্ধান

    চাঁদে বিপুল পরিমাণ পানির সন্ধান

সর্বশেষ খবর

তিন দিনের রিমান্ডে ইরফান ও জাহিদ

ব্যর্থতা ঢাকতে সরকারের ওপর দোষ চাপাচ্ছে বিএনপি : সেতুমন্ত্রী

আজ সাকিবের নিষেধাজ্ঞার শেষ দিন

বুয়েটছাত্র আবরার হত্যা মামলায় আরও একজনের সাক্ষ্য