আদালত

সোমবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ (১১:৫৯)

ডাকসু নির্বাচন: হাইকোর্টের রায় স্থগিত চেয়ে ঢাবির আপিল

ঢাবি

আগামী বছরের মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়-ঢাবি কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচন অনুষ্ঠানে পদক্ষেপ নিতে হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করার অনুমতি চাওয়া হয়েছে।

সোমবার সকালে এ আবেদন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মো. আখতারুজ্জামান।

ডাকসু নির্বাচন অনুষ্ঠানের নির্দেশনা চেয়ে রিট আবেদনকারীদের আইনজীবী মনজিল মোরসেদ।

তিনি বলেন, হাইকোর্টের রায় স্থগিত চেয়ে ঢাবির উপাচার্য লিভ টু আপিল (আপিলের অনুমতি চেয়ে আবেদন) করেছেন।

গতকাল আপিল বিভাগের সংশ্লিষ্ট শাখায় ওই আবেদন দায়ের করা হয় বলে জানান তিনি।

তিনি বলেন, গত বুধবার আদালতের নির্দেশনা অনুসারে ডাকসু নির্বাচনে পদক্ষেপ না নেয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মো. আখতারুজ্জামানসহ তিনজনের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার আবেদন করা হয়।

অপরর দুজন হলেন: বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর এ কে এম গোলাম রাব্বানি ও কোষাধ্যক্ষ কামাল উদ্দিন।

গত ৪ সেপ্টেম্বর ওই তিন জনের প্রতি আইনি নোটিশ পাঠানো হয়। নোটিশে সাত দিনের মধ্যে আদালতের নির্দেশনা অনুসারে ডাকসু নির্বাচন অনুষ্ঠানের ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছিল। কিন্তু নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য কোনো পদক্ষেপ না নেয়ায় আদালত অবমাননার আবেদনটি করা হয় বলে জানান রিটকারী আইনজীবী।

গতকালের তথ্য:

আগামী মার্চে ডাকসু নির্বাচনের কথা ভাবছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। অক্টোবরের মধ্যেই ভোটার তালিকার খসড়া চূড়ান্ত করা হবে— দেশের ক্রিয়াশীল ছাত্র সংগঠনগুলোর নেতাদের সঙ্গে বৈঠক শেষে বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য ড. মো. আখতারুজ্জামান সাংবাদিকদের এমনটাই জানান।

বৈঠকে দ্রুত নির্বাচন অনুষ্ঠানের দাবি জানান ছাত্র সংগঠনের নেতারা। এজন্য বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে সব ছাত্র সংগঠনের রাজনৈতিক সহ-অবস্থানের পরিবেশ নিশ্চিতেরও দাবি তাদের।

আলোচনা ফলপ্রসু হয়েছে জানিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় উপচার্য বলেন, ছাত্র সংগঠনগুলোর দাবি গুরুত্বের সঙ্গে নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

আগামী মার্চ মাসে নির্বাচনের কথা মাথায় রেখে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সব ধরণের প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে ঢাবি উপাচার্য জানান।

বৈঠক শেষে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী জানান, ডাকসু নির্বাচন অনুষ্ঠানে সবাই একমত— যৌক্তিক সময়ে নির্বাচনের আহ্বান জানানো হয়েছে।

কেন্দ্রীয় ছাত্রদল সভাপতি রাজীব আহসান জানান, ছাত্রদলও নির্বাচনের পক্ষে তবে নির্বাচনের সুষ্ঠু পরিবেশ তৈরিতে সংগঠনগুলোর সহঅবস্থান তৈরির ওপর জোর দেয়া হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনের বিষয়ে আলোচনার জন্য সক্রিয় বিভিন্ন ছাত্র সংগঠনগুলোর সঙ্গে বৈঠক করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ পরিষদ।

রোববার বেলা পৌনে ১২টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) আবদুল মতিন ভার্চুয়াল শ্রেণিকক্ষে এ বৈঠক হয়।

এতে সভাপতিত্ব করেন ঢাবি উপাচার্য মো. আখতারুজ্জামান। বৈঠকে আরও উপস্থিত ছিলেন- সহ–উপাচার্য নাসরিন আহমাদ ও আবদুস সামাদ, কোষাধ্যক্ষ কামাল উদ্দিন, প্রক্টর গোলাম রব্বানীসহ বিভিন্ন হলের প্রভোস্টরা।

বৈঠকে উপস্থিত আছেন- কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক, ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সাধারণ সম্পাদক, ছাত্র ইউনিয়ন, ছাত্র ফেডারেশন, ছাত্র ফ্রন্ট, ছাত্র মৈত্রী, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী, জাসদ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় ও ঢাবি শাখার নেতারা।

গত বৃহস্পতিবার ডাকসু নির্বাচন করার উদ্যোগ না নেয়ায় আদালত অবমাননার মামলা হওয়ার পর এ আলোচনার উদ্যোগ নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

সভায় যোগ দিতে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি সঞ্জিত চন্দ্র দাস ও সাধারণ সম্পাদক হোসাইন সাদ্দাম মধুর ক্যান্টিন থেকে উপাচার্যের কার্যালয়ে যান।

মিনিট পাঁচেক পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দুইজন সহকারী প্রক্টর বিশ্ববিদ্যালয়ের গাড়িতে করে ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সভাপতি রাজীব আহসান ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সাধারণ সম্পাদক বাশার সিদ্দিকীকে নিয়ে উপাচার্যের কার্যালয়ে উপস্থিত হন।

ডাকসু নির্বাচনের দাবিতে সবচেয়ে বেশি সোচ্চার তিন বাম সংগঠন ছাত্র ইউনিয়ন, ছাত্র ফেডারেশন ও ছাত্রফন্ট।

তবে তারা সভাকক্ষে আসেন আলোচনা শুরুর কিছুক্ষণ পর।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক নাসরীন আহমাদ, উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক মুহম্মদ সামাদ, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক কামাল উদ্দিন, প্রক্টর অধ্যাপক এ কে এম গোলাম রাব্বানী এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন হলের প্রাধ্যক্ষরা উপস্থিত রয়েছেন এ সভায়।

মোট ১৩টি ‘ক্রিয়াশীল’ ছাত্র সংগঠনের নেতাকর্মীদের এ আলোচনার জন্য ডাকা হয়েছে বলে জানা গেছে।

প্রসঙ্গত: ১৯২১ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার পরের বছর যাত্রা শুরু করে ডাকসু। ভাষা আন্দোলন, শিক্ষা আন্দোলন এবং ঊনসত্তরের গণ অভ্যুত্থানসহ বাংলাদেশের স্বাধীনতার সংগ্রামে ডাকসু এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রনেতারা ছিলেন সামনের কাতারে।

স্বাধীন বাংলাদেশেও স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনসহ বিভিন্ন গণতান্ত্রিক আন্দোলনেও এ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে।

প্রতিবছর ডাকসু নির্বাচন হওয়ার কথা থাকলেও দেশ স্বাধীন হওয়ার পর ভোট হয়েছে মাত্র ছয় বার। সর্বশেষ ১৯৯০ সালের ৬ জুন ডাকসু নির্বাচনের পর বেশ কয়েকবার উদ্যোগ নেয়া হলেও সে নির্বাচন আর হয়নি।

ছয় বছর আগের একটি রিট আবেদনের নিষ্পত্তি করে চলতি বছর ১৭ জানুয়ারি এক রায়ে হাইকোর্ট ছয় মাসের মধ্যে ডাকসু নির্বাচনের ব্যবস্থা করতে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেয়।

কিন্তু সাত মাসেও নির্বাচনের কোনো আয়োজন দৃশ্যমাণ না হওয়ায় গত ৪ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে উকিল নোটিস পাঠান রিটকারীদের আইনজীবী মনজিল মোরসেদ।

তার জবাব না পেয়ে গত বুধবার তিনি হাইকোর্টে আদালত অবমাননার অভিযোগ আনেন উপাচার্যসহ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে।

এছাড়াও রয়েছে

আবরার হত্যা মামলায় জিয়নের জামিন নামঞ্জুর

বাস ভাড়া বাড়ানোর সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করে রিট

ভার্চুয়াল কোর্টের মেয়াদ ১৫ জুন পর্যন্ত বৃদ্ধি

হাইকোর্ট বিভাগের ১৮ বিচারপতির শপথ বিকালে

হু'র অনুমোদন নেই, জীবাণুনাশক টানেল ব্যবহার বন্ধে নোটিশ

সারাদেশে ভার্চ্যুয়াল কোর্টে ১০ হাজার আসামির জামিন

ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে বিচার কার্যক্রম শুরু আজ

ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে চলবে বিচার রাষ্ট্রপতির অধ্যাদেশ জারি

আরও খবর

  • চীনের সমালোচনা করার অবস্থান যুক্তরাষ্ট্রের নেই: উত্তর কোরিয়া

    চীনের সমালোচনা করার অবস্থান যুক্তরাষ্ট্রের নেই: উত্তর কোরিয়া

  • চীনা করোনা মেডিকেল টিম ঢাকায় আসছে ৮ জুন

    চীনা করোনা মেডিকেল টিম ঢাকায় আসছে ৮ জুন

  • শুরু হচ্ছে অ্যাভাটার টু সিনেমার শুটিং

    শুরু হচ্ছে অ্যাভাটার টু সিনেমার শুটিং

  • লিবিয়ায় ২৬ বাংলাদেশি হত্যার মূলহোতা আল-মিশাই নিহত

    লিবিয়ায় ২৬ বাংলাদেশি হত্যার মূলহোতা আল-মিশাই নিহত

সর্বশেষ খবর

ফ্লয়েড হত্যা : প্রতিবাদে যোগ দিলেন স্বয়ং ট্রাম্পের মেয়ে

জুন থেকেই পোশাক কারখানায় শ্রমিক ছাঁটাই: রুবানা হক

বাংলামোটরে বাস চাপায় ২ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

নতুন মৃত্যু ৩৫, শনাক্ত ২৪২৩