সদ্য পাওয়া
Desh TV Logo জাতীয়: বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে হবে মিয়ানমারকে, নিউইয়র্কে গণসংবর্ধনায় বললেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, রাখাইনে সামরিক বাহিনীর দমন-নির্যাতন বন্ধের দাবি Desh TV Logo রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমার সরকারের উপর আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের চাপ ক্রমেই বাড়ছে: জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে বিশ্ব নেতাদের উদ্বেগ প্রকাশ Desh TV Logo রোহিঙ্গাদের ত্রাণ-পুনর্বাসন কার্যক্রমে অংশ নিয়েছে সেনাবাহিনী: কক্সবাজারে ওবায়দুল কাদের Desh TV Logo মুন্সীগঞ্জের চরমুক্তারপুরের আইডিয়াল টেক্সটাইল মিলের আগুন নিয়ন্ত্রণে, ৬ জনের মৃতদেহ উদ্ধার Desh TV Logo আগামী ডিসেম্বরের মধ্যে দেশে ফোর-জি নেটওয়ার্ক চালু হচ্ছে: টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী Desh TV Logo স্বার্থ হাসিলের উদ্দেশ্যে সরকারকে ভুল তথ্য দিয়ে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছেন চালকল মালিকরা, পাটের বস্তার কারণে চালের দাম বেড়েছে এটা ডাহা মিথ্যা কথা: পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী Desh TV Logo উপজেলা পর্যায়ে ওএমএস কার্যক্রম শুরু Desh TV Logo আন্তর্জাতিক: মেক্সিকোতে ৭ দশমিক ১ মাত্রার ভূমিকম্পে এ পর্যন্ত ২৫০ জনের প্রাণহানি, মেক্সিকো সিটিতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি, আরো প্রাণহানির আশঙ্কা Desh TV Logo যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের রক্ষার জন্য প্রয়োজনে উত্তর কোরিয়াকে সমূলে ধ্বংস করে দেয়ার হুমকি দিয়েছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প Desh TV Logo এবার ভার্জিন আইল্যান্ডস ও পুয়ের্টো রিকোতে হারিকেন মারিয়ার তাণ্ডব Desh TV Logo খেলা: দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে ইমিগ্রেশন ক্লিয়ারেন্স না পাওয়ায় যেতে পারেননি বাংলাদেশ পেসার রুবেল হোসেন Desh TV Logo ইনজুরি থেকে পুরোপুরি সেরে না ওঠায় বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে খেলতে পারবেন না দক্ষিণ আফ্রিকার পেসার ভারনন ফিল্যান্ডার, পুরো টেস্ট সিরিজ মিস করবেন ক্রিস মরিস Desh TV Logo ফুটবল: অনূর্ধ্ব-১৮ সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে সন্ধ্যা ৭টায় মালদ্বীপের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ Desh TV Logo লা লিগায় মেসির ৪ গোলে এইবারকে ৬-১ ব্যবধানে হারালো বার্সেলোনা Desh TV Logo দেশ টিভির সংবাদ দেখুন সকাল সাড়ে ৭টা, ১০টা, বেলা ১২টা, দুপুর ২টা, বিকাল ৪টা, সন্ধ্যা ৭টা, রাত ৯টা, ১১টা এবং ১টায়

মিয়ানমানের সৃষ্ট সমস্যা সমাধানের পথ তাদেরকেই করতে হবে: এইচ টি ইমাম

সোমবার, ০৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ (১৮:২৫)
মিয়ানমানের-সৃষ্ট-সমস্য-সমাধানের-পথ-তাদেরকেই-করতে-হবে-এইচ-টি-ইমাম

এইচ টি ইমাম

রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে যৌথভাবে সীমান্ত পরিদর্শন, সীমান্ত প্রহরা এবং সশস্ত্র হামলাকারীদের বিরুদ্ধে যৌথ-অভিযান পরিচালনা- এ তিন প্রস্তাব মিয়ানমার সরকারকে দিয়েছে বাংলাদেশ।

এ দ্বিপাক্ষিক তৎপরতা ছাড়াও এ সমস্যা আন্তর্জাতিকভাবে সমাধানেরও চেষ্টা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম।

দেশ টিভিকে দেয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে রোহিঙ্গা ইস্যু বাংলাদেশের অর্থনীতি, নিরাপত্তা, পর্যটনসহ অভ্যন্তরীণ নানা সমস্যার সৃষ্টি করছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, সরকার বিষয়টিকে বিশেষ প্রাধান্য দিয়ে সমাধানের চেষ্টা চালাচ্ছে।

রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী-বিরোধী মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে পরবর্তী সেনাবাহিনী এবং পুলিশি নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে রোহিঙ্গারা মাতৃভুমি ছেড়ে সহায় সম্বল রেখে বাংলাদেশে ছুটছে। আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থাসহ বিভিন্ন সূত্র বলছে, গত কয়েকদিনে নো-ম্যান্স ল্যান্ড বা জিরোলাইনে মিয়ানমার থেকে প্রায় ৭০ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে ঢুকে পড়েছে।

মানবিক দৃষ্টিকোণ বিবেচনায় বাংলাদেশ হাজার হাজার রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দিলেও এখন আর পারছে না। তাই এ পরিস্থিতি সামাল দিতে মিয়ানমার অংশেই নিরাপদ অঞ্চল করে রোহিঙ্গাদের স্থান দেয়ার উদ্যোগ আলোচনায় এসেছে।

আন্তর্জাতিকভাবে আলোচনায় এ উদ্যোগে বাংলাদেশের সায় রয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম।

তিনি বলেন, উদ্ভূদ্ধ সমস্যা মিয়ারমানের সৃষ্টি তাই সমাধানের পথও মিয়ানমারকেই তৈরি করতে হবে।

তিনি আরো বলেন, রোহিঙ্গা ইস্যু বাংলাদেশের জন্য এখন অনেক গুরুত্বপূর্ণ। দেশের সবচেয়ে বড় পর্যটন কেন্দ্র কক্সবাজার ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে, পাশাপাশি নিরাপত্তা যেমন হুমকিতে পড়ছে তেমনি ক্ষতি হচ্ছে অর্থনীতির।

তাই এসব দিক গুরুত্ব দিয়ে সরকার শুধু আন্তর্জাতিকভাবেই এগোচ্ছা না দ্বিপাক্ষিভাবেও আলোচনাও চালিয়ে যাচ্ছে বলে জানান তিনি।

সে আলোচনায় দুদেশ যৌথভাবে সীমান্ত প্রহরা দেবে, সীমান্ত পরিদর্শন করবে এবং জঙ্গি বা উগ্রবাদীদের বিরুদ্ধে যৌথভাবে অভিযান চালাবে এমন গঠনমূলক তিনটি প্রস্তাব মিয়ানমার সরকারকে বাংলাদেশ থেকে দেয়া হয়েছে- বলে জানান প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক এ উপদেষ্টা।

এর আগে গত অক্টোবরে মিয়ানমারের আইন শৃংখলা বাহিনীর সঙ্গে সংঘাতে প্রায় এক লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে।

এই ক্যাটাগরীর আরও খবর

পুরনো সংবাদ

শুক্র
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
০১
০২
০৩
০৪
০৫
০৬
০৭
০৮
০৯
১০
১১
১২
১৩
১৪
১৫
১৬
১৭
১৮
১৯
২০
২১
২২
২৩
২৪
২৫
২৬
২৭
২৮
২৯
৩০