বিশেষ প্রতিবেদন

সোমবার, ১০ জুলাই, ২০১৭ (১৪:৫৪)

চিকুনগুনিয়া ভাইরাসে আতঙ্কিত নগরবাসী

চিকুনগুনিয়া ভাইরাসে আতঙ্কিত নগরবাসী

রাজধানীতে ব্যাপকভাবে বাড়ছে চিকুনগুনিয়া ভাইরাসের বিস্তৃতি—এতে আতঙ্কিত নগরবাসী।

দেশের বিভিন্ন জায়গাতে দেখা দিচ্ছে এই ভাইরাসের প্রকোপ। জ্বর আর প্রচণ্ড ব্যথার লক্ষণযুক্ত এ ভাইরাস মোকাবেলায় সচেতনতা আর এর বাহক এডিস মশা নিধনের ওপর জোর দিচ্ছেন চিকিৎসকরা।

এক্ষেত্রে মশা নিধনে সিটি করপোরেশন প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিচ্ছে না বলে অভিযোগ করেছেন নগরবাসীর অনেকেই।

তারা বলছেন, সিটি করপোরেশনের পর্যাপ্ত উদ্যোগের অভাবেই চিকুনগুনিয়ার সংক্রমণ বাড়ছে। আবার কোনো কোনো এলাকায় মশা নিধনে স্প্রে করা হলেও ওষুধের মান নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে মানুষের মধ্যে।

এডিস প্রজাতির এডিস ইজিপ্টি এবং এডিস এলবোপিকটাস মশার মাধ্যমে চিকুনগুনিয়া রোগের সংক্রমণ ঘটে। চিকুনগুনিয়া ভাইরাসটি টোগা ভাইরাস গোত্রের। মশাবাহিত হওয়ার কারণে একে ভাইরাসও বলে। ডেঙ্গু ও জিকা ভাইরাসও এই মশার মাধ্যমে ছড়ায়, রোগের লক্ষণও প্রায় একই রকম। এ ধরণের মশা সাধারণত ভোরবেলা অথবা সন্ধ্যায় কামড়ায়। একটি পরিবারের একজন আক্রান্ত হলে মশার মাধ্যমে অন্যদেরও আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি থাকে।

রাজধানীর পূর্ব তেজকুনিপাড়ার বাসিন্দা, ব্যবসায়ী জাভেদ চৌধুরী দুদিন ধরে জ্বরে ভুগছেন। একই এলাকার শহীদুল ইসলাম বাদলও কয়েকদিন আগে জ্বর থেকে উঠেছেন। তাদের অভিযোগ, মশা নিধনে সিটি করপোরেশন কার্যকর ব্যবস্থা না নেয়ায় এই ভাইরাস ব্যাপকভাবে ছড়িয়েছে।

তবে কোনো কোনো এলাকায় মশা নিধনের তৎপরতাও দেখা গেছে।

দক্ষিণ সিটি কপোরেশনের ২৬ নম্বর এই ওয়ার্ডে বাড়ি বাড়ি গিয়ে দিনে দু'বার করে স্প্রে করা হয়।

এই ভাইরাস প্রতিরোধে জনসচেতনতা বাড়ানোর কথা বলেন কাউন্সিলর হাসিবুর রহমান মানিক।

একই কথা জানান একই সিটি কপোরেশনের ৩৩ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আওয়াল হোসেনও।

তবে মশা নিধনে ব্যবহৃত ওষুধের মান সম্পর্কে তিনি প্রশ্ন তুললেন।

এদিকে, চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্তদের ক্ষতিপূরণ দিতে কেনো নিদের্শ দেয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রোববার রুল জারি করে হাইকোর্ট।

স্বাস্থ্যসচিব, স্থানীয় সরকার সচিব, ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র এবং সিটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাকে তিন সপ্তাহের মধ্যে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

 

ইউটিউবে দেশ টেলিভিশনের জনপ্রিয় সব নাটক ও অনুষ্ঠান দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Desh TV YouTube Channel

এছাড়াও রয়েছে

পদ্মা সেতুর কাজের অগ্রগতি অর্ধেকেরও বেশি

পরিবার ও দলের সদিচ্ছার অভাবেই জিয়া হত্যা মামলা এগোয়নি

ঈদে ফিটনেস বিহীন গাড়ি চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি

সহসাই মুক্তি পাচ্ছেন না খালেদা জিয়া

শান্তি চুক্তি বাস্তবায়িত না হওয়াই পার্বত্য অঞ্চলে অস্থিরতা

এবারও অর্জিত হচ্ছে না রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা

তারেককে ফেরানো কঠিন হবে আসামি প্রত্যার্পণ চুক্তি না থাকায়

কোটা বাতিলে সাংবিধানিকভাবে সমস্যা নেই, সংস্কারই শ্রেয়

সড়ক-মহাসড়ক-রেল লাইন-আবাসিক এলাকায় পশুর হাট বসবে না

দেশপ্রেমিক নেতৃত্বের ওপর আস্থাশীল হওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

বিএনপির বক্তব্যে সহিংসতার আভাস: কাদের

মুক্তিযোদ্ধারা সরকারি হাসপাতালে বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা পাবেন