সেনানিবাস এলাকায় আইন লঙ্ঘনের সর্বোচ্চ শাস্তি ২০ হাজার টাকা

সোমবার, ১৫ মে, ২০১৭ (১৮:৫১)
সেনানিবাস-এলাকায়-আইন-লঙ্ঘনের-সর্বোচ্চ-শাস্তি-২০-হাজার-টাকা

মন্ত্রিসভার বৈঠকে

দেশের যেকোনো সেনানিবাস এলাকার রাস্তাঘাটে মাতলামি, ভিক্ষাবৃত্তি বা জুয়া খেলার শাস্তি ২০ হাজার টাকা জরিমানার বিধান রেখে ‘সেনানিবাস আইন ২০১৬’এর খসড়ায় চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। সোমবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠকে এ অনুমোদন দেয়া হয়।

এছাড়াও পুনর্বিন্যস্ত ওই আইনটিতে বিভিন্ন পর্যায়ের জরিমানা ও শাস্তির মেয়াদ বাড়ানো হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে মোট সাতটি আলোচ্য বিষয় উপস্থাপন করা হয়। এরমধ্যে ১৯২৪ সালের তৈরি ‘ক্যান্টনমেন্ট অ্যাক্ট’কে পুনর্বিন্যস্ত করে নতুন করে সেনানিবাস আইন তৈরির খসড়া প্রস্তাবে অনুমোদন দেয় মন্ত্রিসভা।

২৯২টি ধারার পুরনো আইন থেকে অপ্রয়োজনীয় বিষয় বাদ দিয়ে নতুন কিছু সংযোজন করে ২১৮টি ধারা রেখে খসড়া তৈরি করা হয়েছে। এতে দেশের যেকোনো সেনানিবাস এলাকার সড়কে ভিক্ষাবৃত্তি, নেশাদ্রব্য বহন, গ্রহণ, খোলা অবস্থায় মাংস বহনসহ ৪৩টি বিষয়ে শাস্তি-জরিমানার বিধান সংযুক্ত ও বাড়ানো হয়েছে। বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব ব্রিফিং এ এসব তথ্য জানান।

আর সেনানিবাস এলাকায় কেউ বাড়ি নির্মাণ করতে চাইলে তা নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে শেষ করতে হবে। এরমধ্যে কাজ শেষ করতে না পারলে ৫ বার সময় বাড়াতে পারবে। তবে প্রত্যেকবার ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা দিতে হবে।

৯৩ বছরের পুরনো আইনটিকে সংযোজন বিয়োজন করে সময় উপযোগী করা হয়েছে বলে জানান মন্ত্রপরিষদ সচিব।

এছাড়া, বাংলাদেশ ও সান মেরিনোর মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনের লক্ষ্যে একটি চুক্তির খসড়ায় সমর্থনের প্রস্তাবে অনুমোদন দেয়া হয়।

এই ক্যাটাগরীর আরও খবর

তাজরীন ফ্যাশনসে অগ্নিকাণ্ড: দায়ী ব্যাক্তিদের দ্রুত বিচারের দাবি

যতদিন লোকসংগীত থাকবে- ততদিন বারী সিদ্দিকী বেঁচে থাকবেন: প্রধানমন্ত্রী

বঙ্গবন্ধুর ভাষণ ইউনেস্কোর স্বীকৃতি পাওয়ায় সরকারিভাবে পালন হবে

অন্যায়ভাবে দাম বাড়ানোর প্রতিবাদে আদালতে যাবে ক্যাব: ড. শামসুল আলম

না ফেরার দেশে খ্যাতিমান লোকসংগীত শিল্পী বারী সিদ্দিকী

ফরিদপুরকে বিভাগ ঘোষণা করা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী