সদ্য পাওয়া
Desh TV Logo জাতীয়: জলবায়ু পরিবর্তনকে নিরাপত্তার অন্যতম হুমকি হিসেবে চিহ্নিত করে সেদিকে মনোযোগী হতে বিশ্ব সম্প্রদায়ের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান Desh TV Logo জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা মেরকেলের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দ্বিপাক্ষিক বৈঠক; রোহিঙ্গাদের সরাতে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সহযোগিতা চাইলেন শেখ হাসিনা Desh TV Logo জার্মানিতে দুই দিনের সফর শেষে দেশের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা Desh TV Logo মহান একুশে ফেব্রুয়ারি উপলক্ষে সোমবার রাত ৮টা থেকে পরের দিন দুপুর ২টা পর্যন্ত কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার ও আশপাশের এলাকায় যান চলাচল নিয়ন্ত্রিত থাকবে, শহীদ মিনার ঘিরে থাকছে চারস্তরের নিরাপত্তা: ডিএমপি কমিশনার Desh TV Logo কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের পাশে ভাষা জাদুঘর নির্মাণ ও ভাষা সৈনিকদের তালিকা তৈরির জন্য হাইকোর্টের নির্দেশ Desh TV Logo মা ও শিশু স্বাস্থ্য উন্নয়নে ৩০ কোটি ডলার সহায়তা দেবে বিশ্বব্যাংক Desh TV Logo কিশোরগঞ্জে কৃষক আজিজ হত্যা মামলায় একজনের ফাঁসি ও একজনের যাবজ্জীবন কারাদ- Desh TV Logo রংপুর থেকে আন্তঃজেলা ডাকাত দলের ১১ সদস্য গ্রেপ্তার, ২৫টি মোটরসাইকেল উদ্ধার Desh TV Logo আন্তর্জাতিক: এবার গণমাধ্যমকে ‘অসভ্য’ গালি দিয়ে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেছেন, সাংবাদিকরা একটি দুর্নীতিগ্রস্ত ব্যবস্থার অংশ Desh TV Logo ইরাকের মসুলে আইএসের বিরুদ্ধে আক্রমণ শুরুর ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী Desh TV Logo খেলা: রোল বল বিশ্বকাপ: ক্রিকেট: নারী বিশ্বকাপ বাছাই: কলম্বোয় সুপার সিক্সে নিজেদের শেষ ম্যাচে শ্রীলঙ্কার কাছে ডিএল মেথডে ৪২ রানে হেরেছে বাংলাদেশ Desh TV Logo টেনিস: ক্যারোলিন ওজনিয়াকিকে হারিয়ে কাতার ওপেনে নিজের দ্বিতীয় শিরোপা জিতলেন ক্যারোলিনা প্লিসকোভা Desh TV Logo ভ্যাট সম্পর্কে জানতে কল করুন ১৬৫৫৫ নম্বরে: এনবিআর Desh TV Logo দেশ টিভির সংবাদ দেখুন সকাল সাড়ে ৭টা, ১০টা, বেলা ১২টা, দুপুর ২টা, বিকেল ৪টা, সন্ধ্যা ৭টা, রাত ৯টা, ১১টা এবং ১টায়

পবিত্র হজের আনুষ্ঠানিকতা শুরু

শনিবার, ১০ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ (১৩:১০)
পবিত্র-হজের-আনুষ্ঠানিকতা-শুরু

পবিত্র হজের আনুষ্ঠানিকতা শুরু

পবিত্র হজের আনুষ্ঠানিকতা শনিবার থেকে শুরু হয়েছে। ‘লাব্বাইক, আল্লাহুম্মা লাব্বাইক, লা শারিকা লাকা লাব্বাইক, ইন্নাল হামদা ওয়াননি’মাতা লাকা ওয়ালমুল্ক।’ অর্থাৎ—‘আমি হাজির, হে আল্ল্লাহ আমি হাজির, তোমার কোনো শরিক নেই, সব প্রশংসা ও নিয়ামত শুধু তোমারই, সব সাম্রাজ্যও তোমার।’ এই ধ্বনিতে মুখরিত হবে আরাফাতের ময়দান।

আগামীকাল মূল হজ পালন করবেন ধর্মপ্রাণ মুসলমানেরা।

তালবিয়া পাঠ করে মহান সৃষ্টিকর্তার কাছে নিজের উপস্থিতি জানান দিয়ে পাপমুক্তির আকুল বাসনায় লাখ লাখ ধর্মপ্রাণ মুসলমান (হাজি) মিনা থেকে আরাফাতের ময়দানে সমবেত হবেন। সূর্যোদয় থেকে সূর্যাস্ত পর্যন্ত তারা আরাফাতের ময়দানে থাকবেন। কেউ পাহাড়ের কাছে, কেউ সুবিধাজনক জায়গায় বসে ইবাদত করবেন। মসজিদে নামিরাহ থেকে হজের খুতবা দেবেন সৌদি আরবের গ্র্যান্ড মুফতি আবদুল আজিজ আল শাইখ।

হজ ভিসা নিয়ে যারা সৌদি আরবে গিয়ে অসুস্থতার জন্য হাসপাতালে চিকিৎসাধীন, তাদেরও অ্যাম্বুলেন্সে করে আরাফাতের ময়দানে স্বল্প সময়ের জন্য আনা হবে কারণ, আরাফাতের ময়দানে উপস্থিত হওয়া হজের অন্যতম ফরজ।

পবিত্র হজ পালন করতে সারাবিশ্বের অসংখ্য ধর্মপ্রাণ মুসলমান কেউ গাড়িতে বা হেঁটে মিনায় পৌঁছাবেন।

হজ’ শব্দের আভিধানিক অর্থ ‘ইচ্ছা করা’। ইসলাম ধর্মের পাঁচ স্তম্ভের একটি হচ্ছে হজ।

‘আরাফাহ’ এবং ‘আরাফাত’— এ দুটি শব্দই আরবিতে প্রচলিত। আরাফাতের ময়দানটি দুই মাইল দীর্ঘ ও দুই মাইল প্রশস্ত এক বিশাল সমতল মাঠ। এর দক্ষিণ পাশে মক্কা হাদা তায়েফ রিং রোড। এই রোডের দক্ষিণ পাশে আবেদি উপত্যকায় মক্কার উম্মুল কুরআ বিশ্ববিদ্যালয়। আরাফাতের উত্তরে সাদ পাহাড়। সেখান থেকে আরাফাত সীমান্ত পশ্চিমে আরো এক হাজার মিটার বিস্তৃত।

আরাফাতের ময়দানে খুতবার পর জোহর ও আসরের নামাজ আদায় করবেন মুসল্লিরা। তারা সূর্যাস্ত পর্যন্ত সেখানে অবস্থান করে মুজদালিফায় গিয়ে মাগরিব ও এশার নামাজ আদায় করবেন। রাতে সেখানে অবস্থান করবেন খোলা মাঠে। শয়তানের প্রতিকৃতিতে পাথর নিক্ষেপের জন্য প্রয়োজনীয় পাথর সংগ্রহ করবেন সেখান থেকে।

মুজদালিফায় ফজরের নামাজ আদায় করে হাজিরা কেউ ট্রেনে, কেউ গাড়িতে, কেউ হেঁটে মিনায় যাবেন এবং নিজ নিজ তাঁবুতে ফিরবেন। মিনায় বড় শয়তানকে সাতটি পাথর মারার পর পশু কোরবানি দিয়ে মাথার চুল ছেঁটে (ন্যাড়া করে) গোসল করবেন। সেলাইবিহীন দুই টুকরা কাপড় বদল করবেন। এরপর স্বাভাবিক পোশাক পরে মিনা থেকে মক্কায় গিয়ে পবিত্র কাবা শরিফ সাতবার তাওয়াফ করবেন। কাবার সামনের দুই পাহাড় সাফা ও মারওয়ায় ‘সাঈ’ (সাতবার দৌড়াবেন) করবেন। সেখান থেকে তারা আবার মিনায় যাবেন। মিনার কাজ শেষে আবার মক্কায় বিদায়ী তাওয়াফ করার পর নিজ নিজ দেশে ফিরবেন। যারা হজের আগে মদিনায় যাননি, তারা মদিনায় যাবেন।

হাজিদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সৌদি কর্তৃপক্ষ পুলিশ, আধা সামরিক ও সামরিক বাহিনী মোতায়েন করেছে। হাজিদের বিনা মূল্যে চিকিৎসাসেবা দিতে মিনায় কিছু দূর পর পর রয়েছে হাসপাতাল। রয়েছে মোয়াচ্ছাসা, দমকল বাহিনী, পুলিশ বাহিনীর সদস্য। হাজিরা পথ হারিয়ে ফেললে স্বেচ্ছাসেবক, স্কাউট ও হজকর্মীরা তাদের নির্দিষ্ট (তাঁবুতে) গন্তব্যে পৌঁছে দেন।

সৌদি হজ মন্ত্রণালয় ও মোয়াচ্ছাসা কার্যালয় সূত্র জানায়, মক্কা, মিনা ও আরাফাতের ময়দানে সৌদি সরকারের পক্ষ থেকে সব হাজিকে বিনা মূল্যে খাবার, বিশুদ্ধ পানিসহ সব সুবিধা দেওয়া হচ্ছে। পাশাপাশি বেসরকারি সংস্থা ও প্রতিষ্ঠান হাজিদের নানা উপহার দিচ্ছে। সকাল থেকে সারা দিন হেলিকপ্টার মিনার চারপাশ টহল দিচ্ছে।

জামারায় শয়তানের প্রতিকৃতিতে পাথর নিক্ষেপের পর হাজিদের পশু কোরবানির প্রস্তুতি নিতে হয়। অধিকাংশ হাজি নিজে বা বিশ্বস্ত লোক দিয়ে মুস্তাহালাকায় (পশুর হাট ও জবাই করার স্থান) গিয়ে কোরবানি দিবেন। কেউ কেউ ইসলামি উন্নয়ন ব্যাংকে (আইডিবি) ৪৯০ রিয়াল জমা দিয়ে কোরবানি দেন।

বৃহস্পতিবার রাত ১২টা পর্যন্ত হজ পালনের জন্য এক লাখ এক হাজার ৮২৯ বাংলাদেশি সৌদিআরবে পৌঁছেছেন।

এরমধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় পাঁচ হাজার ১৮৩ জন ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ৯৫ হাজার ৬১৪ জন হজ পালন করছেন।

এই ক্যাটাগরীর আরও খবর

আরও খবর

পুরনো সংবাদ

শুক্র
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
 
 
 
 
 
০১
০২
০৩
০৪
০৫
০৬
০৭
০৮
০৯
১০
১১
১২
১৩
১৪
১৫
১৬
১৭
১৮
১৯
২০
২১
২২
২৩
২৪
২৫
২৬
২৭
২৮