আন্তর্জাতিক

বৃহস্পতিবার, ২০ এপ্রিল, ২০১৭ (১৩:৪২)

ভেনিজুয়েলায় সরকার বিরোধী বিক্ষোভে নিহত ৩

ভেনিজুয়েলায়-সরকার-বিরোধী-বিক্ষোভে-নিহত-৩

ভেনিজুয়েলায় সরকার বিরোধী বিক্ষোভ

ভেনিজুয়েলায় সরকার বিরোধী বিক্ষোভে গুলিতে দুই শিক্ষার্থীসহ ৩ জন নিহত হয়েছে। নতুন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন ও কারাবন্দি বিরোধী নেতাদের মুক্তির দাবিতে দেশজুড়ে হাজার হাজার মানুষ এ বিক্ষোভে অংশ নিচ্ছেন।

প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরোর অভিযোগ, বিরোধীরা পুলিশের ওপর হামলা চালিয়েছে এবং দোকানপাটে লুটপাট করেছে। কমপক্ষে ৩০ জন বিক্ষোভকারীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। কারাকাসে সরকার সমর্থকরাও পাল্টা সমাবেশ-মিছিল করছে।

২০১৪ সালে তেলের দাম পড়ে যাওয়ার পর থেকেই কমিউনিস্ট রাষ্ট্র ভেনিজুয়েলার অর্থনীতি ভেঙে পড়ে। ফলে বিভিন্ন খাতে রাষ্ট্রীয় ভর্তুকির ব্যবস্থা অব্যাহত রাখতে এবং দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ হয় সরকার। দেশটিতে চলছে ভয়াবহ খাদ্য সঙ্কট।

বিভিন্ন সুপার স্টোরে খাদ্যসামগ্রীর জন্য দীর্ঘ লাইন। এরসঙ্গে যুক্ত হয়েছে রাজনৈতিক অচলাবস্থা, মূল্যস্ফীতি লাগামহীন। আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল বলছে, চলতি বছর ভেনিজুয়েলায় মূল্যস্ফীতি ৭০০ শতাংশে গিয়ে ঠেকতে পারে।

এ পরিস্থিতিতে দেশটির অর্থনৈতিক সঙ্কট কাটিয়ে ওঠার ক্ষেত্রে কঠিন চ্যালেঞ্জের মুখে প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরো।

বিরোধীদের অভিযোগ, গত কয়েক বছরে মাদুরো দেশটিতে স্বৈরশাসন কায়েম করেছেন। অর্থনৈতিক সংকটের জন্য তারা মাদুরোকে দায়ী করে, নতুন নির্বাচন ও কারাবন্দি বিরোধী নেতাদের মুক্তির দাবিতে বুধবার বিক্ষোভের ডাক দেন বিরোধীরা।

দেশজুড়ে হাজার হাজার মানুষ এ বিক্ষোভে অংশ নিচ্ছেন। এটি গত তিন বছরের মধ্যে সবচেয়ে বড় ও সহিংস বিক্ষোভ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, রাজধানী কারাকাসে বিরোধীদের সমাবেশে সরকার সমর্থকরা গুলি করলে এক তরুণ শিক্ষার্থী ও সান ক্রিস্টোবালে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক নারী শিক্ষার্থী অজ্ঞাত ব্যক্তিদের গুলিতে নিহত হন। বিক্ষোভে দেশটির ন্যাশনাল গার্ডের এক সার্জেন্টও নিহত হয়েছেন। চলতি মাসে বিক্ষোভে এ নিয়ে ৮ জনের প্রাণহানি ঘটলো।

এদিকে, প্রেসিডেন্ট মাদুরো অভিযোগ করেছেন, বিরোধীরা পুলিশের ওপর হামলা চালিয়েছে এবং দোকানপাটে লুটপাট করেছে। কমপক্ষে ৩০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সরকার সমর্থিতরাও রাজধানী কারাকাসে পাল্টা মিছিল-সমাবেশ করছে। তবে মানবাধিকার গ্রুপ প্যানেল ফোরাম বলছে, সারাদেশে ৪০০ বেশি বিক্ষোভকারীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

গত মাসে সুপ্রিম কোর্ট দেশটির পার্লামেন্ট বিলুপ্ত করার ঘটনায় দেশটিতে নতুন করে সংকটের সূত্রপাত। অবশ্য তিন দিন পর আদালত এ সিদ্ধান্ত বদল করলেও ততক্ষণে অনেক দেরি হয়ে যায়। শুরু হয় দেশজুড়ে বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ।

এই ক্যাটাগরীর আরও খবর

জেরুসালেমে মার্কিন দূতাবাস ঠেকাতে ট্রাম্পের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে প্রস্তাব দেবে মিসর

কংগ্রেস সভাপতির হয়েই মোদিকে একচোট নিলেন রাহুল

কংগ্রেসের সভাপতির দায়িত্ব নিলেন রাহুল গান্ধী

আলোচনার আগে পরমাণু কর্মসূচি বন্ধ করতে হবে উ.কোরিয়াকে

আরও খবর

কংগ্রেসের সভাপতির দায়িত্ব নিলেন রাহুল গান্ধী

শহীদ মুস্তাক একাদশের বিপক্ষে জিতেছে শহীদ জুয়েল একাদশ

দুবাইয়ে টি-টেন লিগের প্রথম ম্যাচেই ঝড় তামিমের

দুবাইয়ে জয় দিয়ে টি-টেন লিগ শুরু তামিম-সাকিবের

বিবিসি ওভারসীজ স্পোর্টস পারসোনালিটি অ্যাওয়ার্ড জিতলেন ফেদেরার

হুইলচেয়ার ক্রিকেট: ভারতকে হারালো বাংলাদেশ

শ্রবণ-বাক প্রতিবন্ধীদের জন্য আদালতে ইশারাভাষী নিয়োগের আহ্বান

সংসদ ভবনে ছায়েদুল হকের কফিনে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

উত্তর সিটি নির্বাচন: জানুয়ারি মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে তফসিল ঘোষণা

রংপুর সিটি নির্বাচন যদি প্রশ্নবিদ্ধ হয় তা হবে বিএনপির সদিচ্ছাতেই