অপরাধ

বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল, ২০১৯ (১৫:৪২)

নুসরাত হত্যা মামলা: শামীম ৫ দিনের রিমান্ডে

নুসরাত জাহান রাফি

ফেনীর সোনাগাজীতে মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার মো. শামীমকে পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে বিচারিক আদালত।

বৃহস্পতিবার পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) পরিদর্শক ও মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মো. শাহ আলম এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

বেলা ১২টায় মো. শামীমকে ফেনীর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম সরাফ উদ্দিন আহমদের আদালতে হাজির করা হয়। শামীমকে জিজ্ঞাসাবাদে মো. শাহ আলম সাত দিনের রিমান্ডের আবেদন জানালে আদালত পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে।

এর আগে এজাহারভুক্ত আট আসামির অন্যতম হাফেজ আবদুল কাদের মানিককে (২৫) গ্রেপ্তার করে-পিবিআই।

গতকাল দিবাগত রাতে তাকে রাজধানীর মিরপুর এলাকার ৬০ ফিট এলাকা সংলগ্ন ছাপড়া মসজিদের পাশের একটি বাসা থেকে তাকে ধরা হয়।

সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার হাফেজ বিভাগের শিক্ষক এবং ফাজিল দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র সে।

অধ্যক্ষ সিরাজ উদ-দৌলার অনুগত হিসেবে মাদ্রাসার হোস্টেলে থাকতো আবদুল কাদের।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআইয়ের পরিদর্শক মো. শাহ আলম বাংলা এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, কাদেরকে নিয়ে মামলার এজাহারভুক্ত আট আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এছাড়া এই ঘটনার সন্দেহভাজন আসামি হিসেবে আরও ১০ জন গ্রেপ্তার রয়েছে। তারা ফেনী কারাগারে রয়েছে। তাদের মধ্যে শামীম ও নুর উদ্দিন এবং মো. আবদুর রহিম ওরফে শরিফ দায় স্বীকার করে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

এ হত্যা মামলায় এ পর্যন্ত ১৭ জন গ্রেপ্তারকরা হয়েছে।

তারা হলো– অধ্যক্ষ এসএম সিরাজ উদ দৌলা, কাউন্সিলর ও পৌর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মুকছুদ আলম, শিক্ষক আবছার উদ্দিন, সহপাঠী আরিফুল ইসলাম, নূর হোসেন, কেফায়াত উল্লাহ জনি, মোহাম্মদ আলা উদ্দিন, শাহিদুল ইসলাম, অধ্যক্ষের ভাগনি উম্মে সুলতানা পপি, জাবেদ হোসেন, জোবায়ের হোসেন, নুর উদ্দিন, শাহাদাত হোসেন, মো. শামীম, কামরুন নাহার মনি, জান্নাতুল আফরোজ মনি, শরীফ ও হাফেজ আবদুল কাদের।

গতকাল এ ঘটনায় মো. আবদুর রহিম ওরফে শরিফ (১৯) সে সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার আলিম পরীক্ষার্থীর তার জবানবন্দি গ্রহণ করা হয়।

বুধবার বিকেল সাড়ে ৩টায় ফেনীর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম শরাফ উদ্দিন আহম্মেদের আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি গ্রহণ শুরু হয়।

পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) পরিদর্শক ও মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহ আলম এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

এর আগে আটককৃত মামলার অন্যতম দুই আসামির স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির ভিত্তিতে শরিফকে আটক করা হয়। নুসরাতের ওপর হামলার সময় শরিফ গেটে পাহারারত অবস্থায় ছিল বলে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা গেছে।

গতকাল দুপুরের তথ্য:

ফেনীর সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফির হত্যায় গ্রেপ্তার কামরুন নাহার মণিকে ৫ দিনের রিমান্ড দিয়েছে আদালত।

বুধবার মণিকে ফেনীর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম শরাফউদ্দিন আহমেদের আদালতে হাজির করা হয়।

পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) পরিদর্শক মো. শাহ আলম বলেন, মণির ১০ দিনের রিমান্ড চাওয়া হয়। শুনানি শেষে আদালত ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে।

এদিকে, নুসরাত হত্যা ঘটনা অনুসন্ধানে বিচার বিভাগীয় কমিশন গঠনের নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট করেছেন আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দ।

আবেদনে নুসরাতকে রক্ষায় অবহেলাকারী আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা, ঘটনা অনুসন্ধানে বিচার বিভাগীয় কমিশন গঠন, ঘটনার বিচারে দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে পাঠাতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ, নুসরাতের পরিবারের জন্য যথাযথ ক্ষতিপূরণ দিতে নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে। এছাড়া মামলাটির যাথযথ তদন্তে র্যা পিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র্যা ব) কাছে হস্তান্তরের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে রুল জারির আর্জি জানানো হয়েছে।

আদালত আহ এ ঘটনায় সরাসরি জড়িত অভিযোগে গ্রেপ্তার মণিকে ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে ফেনীর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম শরাফউদ্দিন আহমেদ।

মণিকে ফেনীর আদালতে হাজির করে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) পরিদর্শক মো. শাহ আলম।

এ সময় তিনি বলেন, মণির ১০ দিনের রিমান্ড চাওয়া হয় তবে শুনানি শেষে আদালত ওই নারীর ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে।

এ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে সরাসরি জড়িত থাকার অভিযোগে কামরুন নাহার মণিকে ফেনী শহর এলাকা থেকে গতকাল মঙ্গলবার রাতে গ্রেপ্তার করা হয়। মণি হত্যাকাণ্ডে সরাসরি অংশগ্রহণকারী পাঁচজনের একজন।

এ মামলার অন্যতম প্রধান দুই আসামি নুর উদ্দিন ও শাহাদাত হোসেন গত রোববার ঘটনার দায় স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে। তাদের সেই জবানবন্দি থেকে গ্রেপ্তারকৃত মণির নাম উঠে আসে।

এ হত্যাকাণ্ডে এ পর্যন্ত ১৭ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মামলার এজাহারভুক্ত আটজনের মধ্যে সাত আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এর আগে সোমবার মোহাম্মাদ শামীম নামের আরও একজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। সোমবার রাতে সোনাগাজী পৌরসভার তুলাতলী থেকে ওই তরুণকে গ্রেপ্তার করা হয়।

শামীম সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার আলিম পরীক্ষার্থী।

পিবিআই জানিয়েছে, রোববার মামলার অন্যতম দুই আসামি শাহাদাত হোসেন ওরফে শামীম ও নূর উদ্দিন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। তাদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে শামীমকে গ্রেপ্তার করা হয়।

নুসরাতের গায়ে আগুন ধরিয়ে দেয়ার সময় শামীম প্রশাসনিক ভবনের নিচতলায় পাহারার দায়িত্বে ছিল বলে জানিয়েছে পিবিআই। নুসরাত হত্যা মামলায় আটজনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাতনামা আরও ৪/৫ জনকে আসামি করা হয়।

গত ৬ এপ্রিল আলিমের আরবি প্রথম পত্র পরীক্ষা দিতে সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে যায় নুসরাত। এরপর কৌশলে তাকে পাশের ভবনের ছাদে ডেকে নেয়া হয়। সেখানে বোরকা পরা ৪/৫ ব্যক্তি ওই ছাত্রীর শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়।

পরে ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে তার স্বজনরা প্রথমে সোনাগাজী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাকে ফেনী সদর হাসপাতালে পাঠান।

সেখান প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়ার পর তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে পাঠানো হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১০ এপ্রিল নুসরাত মারা যায়।

ইউটিউবে দেশ টেলিভিশনের জনপ্রিয় সব নাটক ও অনুষ্ঠান দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Desh TV YouTube Channel

এছাড়াও রয়েছে

চট্টগ্রামে বন্দুকযুদ্ধে ধর্ষণ মামলায় আসামি নিহত

মোহাম্মদপুরের বছিলার "জঙ্গি আস্তানায়" অভিযান-বিস্ফোরণ, নিহত ২

নুসরাত হত্যা: নিজের সংশ্লিষ্টতার কথা স্বীকার করল অভিযুক্ত অধ্যক্ষ সিরাজ

গাইবান্ধায় শিশুশিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে শিক্ষক গ্রেপ্তার

নুসরাত হত্যা: খোঁজা হচ্ছে পাহারার দায়িত্বে থাকা শাকিলকে

নুসরাতের গায়ে আগুন দেয় তার দুই সহপাঠী মনি-জাবেদ

নুসরাত হত্যা: অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের বিরুদ্ধে অসহযোগিতার অভিযোগ

পপিই নুসরাতকে ছাদে ডেকে নেয়

সর্বশেষ খবর

শ্রীলঙ্কা সিরিজে বাংলাদেশ দলের কোচ সুজন

এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল কাল

হিমাচলে ভারী বর্ষণে ভবন ধসে নিহত ১৩

আইসিসির সেরা একাদশে সাকিব