অপরাধ

মঙ্গলবার, ২৬ জুন, ২০১৮ (১৮:৫৩)

কুষ্টিয়া-যশোরে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৩ জন নিহত

কুষ্টিয়া-যশোরে ‘বন্দুকযুদ্ধে'

কুষ্টিয়ায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ অপহরণ ও হত্যা মামলার দুই আসামি এবং যশোরে দু’দল সন্ত্রাসীর মধ্যে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ অজ্ঞাতপরিচয় এক যুবক নিহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার ভোরে এসব ঘটনা ঘটে।

কুষ্টিয়া:

কুষ্টিয়ার মিরপুরে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ অপহরণ ও হত্যা মামলার দুই আসামি নিহত হয়েছেন।

তার নাম নাঈম ইসলাম (২৭) ও জোয়ার আলী (২৮)। মঙ্গলবার ভোর ৪টায় উপজেলার চিথলিয়া ইউনিয়নের পাহাড়পুর গ্রামে এ ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানায়, নিহতরা মিরপুরের আলোচিত স্কুলছাত্র দেব দত্ত অপহরণ ও হত্যা মামলার আসামি। আসামিদের স্বীকারোক্তিনুযায়ী সোমবার দুপুরে নাঈমের বাড়ির শৌচাগারের পাশে গর্ত খুড়ে দেব দত্তের হাত-পা বাঁধা বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

পুলিশের দাবি, বন্দুকযুদ্ধে ৪ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র, গুলি ও রামদা উদ্ধার করেছে।

মিরপুর থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, স্কুলছাত্র দেব দত্ত অপহরণ ও হত্যা মামলার আসামি নাঈম ও জোয়ার আলীক সঙ্গে নিয়ে অন্য আসামিদের ধরতে চিথলিয়া ইউনিয়নের পাহাড়পুর গ্রামে অভিযান চালানো হয়। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে একদল সন্ত্রাসী পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। জবাবে পুলিশও পাল্টা গুলি চালালে জোয়ার ও নাঈম গুলিবিদ্ধ হয়। পরে তাদের মিরপুর হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় পুলিশের ৪ সদস্য আহত হয়েছেন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দুইটি দেশীয় তৈরি বন্দুক, ৭ রাউন্ড গুলি ও ৪টি রামদা উদ্ধার করেছে। নিহত নাঈম ইসলাম মিরপুর উপজেলার চিথলিয়া ইউনিয়নের মালিথা পাড়ার জহুরুল ইসলামের ছেলে ও জোয়ার আলী একই গ্রামের আক্কাস আলীর ছেলে। পুলিশ নিহতদের লাশ উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

গত ৯ জুন মিরপুর উপজেলার চিথলিয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্র দেব দত্ত (৯) প্রাইভেট পড়ার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর অপহরণ হয়। ওইদিন বিকেলে তার বাবা স্কুল শিক্ষক পবিত্র দত্তের মুঠোফোনে ফোন করে ৫০ লাখ টাকা মুক্তপণ দাবি করে অপহরণকারীরা। এ ঘটনায় পুলিশ নাঈম ও জোয়ারকে আটক করে। তাদের স্বীকারোক্তিনুযায়ী সোমবার দুপুরে পুলিশ নাঈমের বাড়ির শৌচাগোরের পাশে গর্ত খুড়ে দেব দত্তের হাত-পা বাঁধা বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার করে।

যশোর:

যশোরে দু’দল সন্ত্রাসীর মধ্যে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ অজ্ঞাতপরিচয় এক যুবক নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার ভোরে যশোরের চৌগাছা উপজেলার ফুলসারা ইউনিয়নের নিমতলা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করেছেন। তবে তার নাম-পরিচয় এখনও জানা যায়নি।

যশোরের চৌগাছা থানার ওসি খন্দকার শামীম উদ্দিন জানান, মঙ্গলবার ভোরে তারা খবর পান ফুলসারা ইউনিয়নের নিমতলা এলাকায় দু’দল সন্ত্রাসী গোলাগুলি করছে। এ খবরের ভিত্তিতে তারা ওই এলাকায় অভিযান চালান। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে অজ্ঞাতপরিচয় এক যুবককে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। তাকে যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি ওয়ানশুটারগান ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করেছে। নিহতের লাশ হাতপাতালের মর্গে রয়েছে।

ইউটিউবে দেশ টেলিভিশনের জনপ্রিয় সব নাটক ও অনুষ্ঠান দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Desh TV YouTube Channel

এছাড়াও রয়েছে

চট্টগ্রামে বন্দুকযুদ্ধে ধর্ষণ মামলায় আসামি নিহত

মোহাম্মদপুরের বছিলার "জঙ্গি আস্তানায়" অভিযান-বিস্ফোরণ, নিহত ২

নুসরাত হত্যা: নিজের সংশ্লিষ্টতার কথা স্বীকার করল অভিযুক্ত অধ্যক্ষ সিরাজ

গাইবান্ধায় শিশুশিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে শিক্ষক গ্রেপ্তার

নুসরাত হত্যা: খোঁজা হচ্ছে পাহারার দায়িত্বে থাকা শাকিলকে

নুসরাতের গায়ে আগুন দেয় তার দুই সহপাঠী মনি-জাবেদ

নুসরাত হত্যা: অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের বিরুদ্ধে অসহযোগিতার অভিযোগ

পপিই নুসরাতকে ছাদে ডেকে নেয়

সর্বশেষ খবর

ঠাকুরগাঁওয়ে বজ্রপাতে হতাহত ৯ নারী

শহীদ জননী জাহানারা ইমামের মৃত্যুবার্ষিকী আজ

মাইক্রোবাসের সিলিন্ডার বিস্ফোরণে পটিয়ায় ২০ জন দগ্ধ

আজ পাকিস্তানের প্রতিপক্ষ নিউজিল্যান্ড